• আইএমএফ-প্রধান হিসেবে প্রথম নারীঃ ফরাসী অর্থমন্ত্রী ক্রিস্টিন ল্যাগারদে’র নাম ঘোষিত
    Christine-Lagarde.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি, ২৮ জুন ২০১১, মঙ্গলবারঃ  আন্তর্জাতিক অর্থ তহবিল আইএমএফ-এর পরিচালনা বৌর্ড মঙ্গলবার তার ম্যানেজিং ডাইরেক্টর হিসেবে ফরাসী অর্থমন্ত্রী ক্রিস্টিন ল্যাগারদে'র নাম ঘোষণা করেছে - যার মধ্য দিয়ে প্রতিষ্ঠানটির ইতিহাসে এ-প্রথমবারের মতো প্রধান হিসেবে একজন নারী নির্বাচিত হলেন।

    দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর প্রতিষ্ঠিত এ-প্রতিষ্ঠানটি পুরুষ শাসিত হবার পাশিপাশি ইউরোপীয় শাসিতও বটে। ব্যতিক্রমহীন-ভাবে যেখানে বিশ্বব্যাংকের চেয়ারম্যান হন একজন আমেরিকান, সেখানে আইএমএফের ম্যানেজিং ডাইরেক্টর হন একজন ইউরোপীয় নাগরিক।

    উল্লেখ্য, আইএমএফের প্রাক্তন প্রধান ডমিনিক স্ট্রস-কানও ক্রিস্টিন ল্যাগারদে’র মতোই ছিলেন ইহুদী বংশোদ্ভূত ফরাসী নাগরিক এবং প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী।

    হৌটেল-মেইডকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে স্ট্রস-কান গ্রেফতারিত হয়ে আইএমএফ থেকে পদত্যাগ করলে আন্তর্জাতিকভাবে অতি গুরুত্বপূর্ণ পদটি পূরণের জন্য যে-প্রতিযোগিতা তৈরী হয়, তার মধ্যে শেষ পর্যন্ত টেকেন মেক্সিকোর কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রধান অগাস্টিন ক্যারস্টেন্স ও ফরাসী অর্থমন্ত্রী ক্রিস্টিন ল্যাগারদে।

    অস্ট্রেলিয়া ও কানাডা-সহ বেশ কয়েকটি দেশ অ-ইউরোপীয় অগাস্টিন ক্যারস্টেন্সকে সমর্থন করলেও, শেষ পর্যন্ত ফরাসী প্রার্থীর প্রতি মার্কিন যুক্তরাষ্টের সমর্থন জানানোর পর আইএমএফ বৌর্ড তার নতুন প্রধান হিসেবে ক্রিস্টিন ল্যাগারদে’র নাম ঘোষণা করে।

    মার্কিন ট্রেজারী সেক্রেট্যারী গীথনার এক বিবৃতিতে বলেন, ‘বৈশ্বিক অর্থনীতির বর্তমান সঙ্কটকালে অপরিহার্য এ-প্রতিষ্ঠানটির জন্য মিনিস্টার ল্যাগারদে’র অসাধারণ মেধা ও ব্যাপক অভিজ্ঞতা অমূল্য নেতৃত্ব যুগাবে।’

    আইএমএফ বৌর্ডের ঘোষাণা শোনার পর ল্যাগারদে তার টুইটার বার্তায় লেখেন, ‘ফলাফল প্রকাশিতঃ আমি সম্মানীত ও আনন্দিত যে, বৌর্ড আইএমএফের এমডি হিসেবে আমার উপর আস্থা স্থাপন করেছে’।

    ল্যাগারদে এক বিবৃতিতে জানান, তিনি সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাবেন যাতে আইএমএফ ‘সবার জন্য অধিক শক্তিশালী, টেকসই প্রবৃদ্ধি, মেক্রো-অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা ও সুন্দরতর ভবিষ্যত অর্জনের উদ্দেশ্যে প্রাসঙ্গিক, দায়িত্বশীল, কার্যকর এবং বৈধরূপে বিরাজ করে।’

    ফরাসী প্রেসিডেন্ট নিকোলাস সারকোজী - যিনিও ল্যাগারদে’র মতো ইহুদী বংশোদ্ভূত - বলেন, ‘ফ্রেঞ্চ প্রেসিডেন্সী আনন্দিত যে একজন নারী এই গুরুত্বপূর্ণ আন্তর্জাতিক ভূমিকায় অবতীর্ণ হচ্ছেন।’

    ল্যাগারদে’র আইএমএফ-প্রধানের পদ-প্রাপ্তিকে ‘ব্রিটেইন ও বৈশ্বিক অর্থনীতির জন্য সুসংবাদ’ উল্লেখ করে ব্রিটিশ অর্থমন্ত্রী জর্জ ঔসবর্ন বলেন, ‘এ-পদের জন্য তিনি হচ্ছেন সর্বোত্তম ব্যক্তি, আর এ-কারণে ব্রিটেইন হচ্ছে তার নাম প্রস্তাবকারী দেশেগুলোর মধ্যে অন্যতম।’

    ক্রিস্টিন ল্যাগের সাথে নিজের ভাবনার মিল ইঙ্গিত করে ঔসবর্ন বলেন, ‘দেশে-দেশে উচ্চ বাজেট-ঘাটতি নিয়ন্ত্রণ ও সবাইকে তাদের সাধ্যের মধ্যে জীবন-যাপনের পক্ষে একজন কড়া উকিল তিনি।’

    আইএমএফ-এর নবনির্বাচিত ম্যানেজিং ডাইরেক্টর ক্রিস্টিন ল্যাগারদে আগামী ৫ জুলাই থেকে তার দায়িত্ব পালন শুরু করবেন।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন