• আন্তর্জাতিক অর্থ তহবিলের প্রধান যৌনপীড়নের দায়ে গ্রেফতারিত
    IMF-head-arrested-on-sex-assault-20110515_02.jpg

    রবিবার, ১৫ মে ২০১১, ইউকেবেঙ্গলি ডেস্কঃ হোটেল পরিচারিকার উপর যৌনপীড়ন ও ধর্ষণ-চেষ্টার অভিযোগে শনিবার ইন্টারন্যাশনাল মনিটরী ফান্ডের ম্যানেজিং ডাইরেক্টর ডমিনিক স্ট্রস-কানকে জন এফ কেনেডী ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপৌর্টে এয়ার ফ্রান্সের প্যারিস-গামী একটি বিমান থেকে উড্ডয়নের প্রাক্কালে নামিয়ে এনে গ্রেফতার করা হয়েছে।

    নিউ ইয়র্ক টাইমস-সহ আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থাগুলো জানাচ্ছে, নিউ ইয়র্কের বিখ্যাত সফিটেল হোটেলে অবস্থান করা মিঃ স্ট্রস-কানের স্যুইটে ৩২ বছর বয়স্কা এক পরিচারিকা কর্তব্য পালনে গেলে তিনি তার উপর যৌনপীড়ন ও ধর্ষণে চেষ্টা করেন।

    পুলিসের ভাষ্যমতে, মিঃ স্ট্রস-কান শুক্রবার নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটন অঞ্চলে টাইম স্কোয়ারের কাছে ৪৫ ওয়েস্ট ফোরটীফৌর্থ স্ট্রীটস্থ এ-হোটেলটির ২৮০৬ নম্বর স্যুইটে চেক-ইন করেন। পরদিন শনিবার তার চেক-আউট হবার কথা। দুপুর ১টার দিকে স্যুইটটিকে শূন্য মনে করে কর্তব্যরতা পরিচারিকাটি স্যুইটিতে কাজ করতে যান। কিন্তু তিনি জানতেন না যে মিঃ স্ট্রস-কান তখনও সেখানে অবস্থান করছিলেন।

    পরিচারিকাটিকে উদ্বৃত করে পুলিস জানায়, এ-সময় আইএফএম প্রধান মিঃ স্ট্রস-কান স্নানাগার থেকে সম্পূর্ণ উলঙ্গ হয়ে বেরিয়ে এসে অতর্কিতে পরিচারিকাটির উপর চড়াও হন। আক্রান্ত নারী দু-দু’বার চেষ্টার পর নিজেকে মুক্ত করে পালিয়ে গিয়ে তার সহকর্মীকে জানানোর পর বিষয়টি পুলিসে নালিশ করা হয়। অকূস্থলে পুলিস পৌঁছার আগেই মিঃ স্ট্রস-কান হোটেল ত্যাগ করে প্যারিসে উদ্দেশ্য বিমানে আরোহণ করতে সক্ষম হন। কিন্তু শেষ অবধি তিনি রক্ষা পাননি।

    বিশ্বের অত্যন্তগুরুপূর্ণ এ-সংস্থার প্রধান ৬২ বছর-বয়স্ক মিঃ স্ট্রস-কান জাতিতে ফরাসী। ২০১২ সালে অনুষ্ঠেয় ফ্রান্সের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ফ্রান্সের সমাজতান্ত্রিক দলের প্রার্থী হিসেবে তিনি রক্ষণশীল প্রার্থী ও বর্তমান রাষ্ট্রপতি সার্কোজিকে মোকাবেলা করার জন্য তৈরী হচ্ছিলেন। ১৯৯৭ থেকে ১৯৯৯ পর্যন্ত ফ্রান্সের অর্থমন্ত্রী এবং তার আগে ১৯৯১-১৯৯৩ পর্যন্ত শিল্পমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করা মিঃ স্ট্রস-কান পেশাগত-ভাবে অর্থনীতির অধ্যাপক। ২০০৭ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ফ্রান্সের সৌসালিস্ট পার্টি থেকে তিনি মনোনয়নের চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। কিন্তু একই বছর তিনি রক্ষণশীল দলীয় প্রেসিডেন্ট সার্কোজির সমর্থনে আইএফএমের ম্যানেজিং ডাইরেক্টর হিসেবে নিয়োগপ্রাপ্ত হন।

    ডমিনিক স্ট্রস-কানের যৌন কেলেঙ্কারীর ঘটনা এটি নতুন নয়। ২০০৮ সালে তার অধীনে কর্মরতা হাঙ্গেরীয় বংশোদ্ভূত অর্থনীতিবিদ মিসেস পিরস্কা ন্যাগীর সাথে তার পরকীয়া প্রেম ও সে-কারণে বিশেষ সুবিধা দেবার অভিযোগে অভিযুক্ত হয়ে আইএমএফের কর্মীবৃন্দ ও তার সাংবাদিক স্ত্রী অ্যান সিনক্লেয়ারের কাছে লিখিতভাবে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। তার আগে ২০০২ সালে ফরাসী লেখক ও সাংবাদিক ট্রিস্টেইন ব্যানন তার বিরুদ্ধে ধর্ষণ-চেষ্টার অভিযোগ এনেছিলেন, যদিও তিনি শেষ পর্যন্ত তিনি মামলাটি এগিয়ে নিয়ে যাননি।

    এদিকে, ওয়াশিংটনে আইএমএফের সদর দপ্তরে দ্রুততার সাথে সংস্থার ডেপুটি ম্যানেজিং ডাইরেক্টর জন লিপস্কিকে এ্যাক্টিং ম্যানেজিং ডাইরেক্টর হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। মার্কিন নাগরিক মিঃ লিপস্কি ইতিপূর্বে মার্কিন ট্রেজারী এক্সিকিউটিভ এবং বিখ্যাত ইনভেস্টমেন্ট ব্যাঙ্ক জেপি মর্গানের ভাইস-চেয়ারম্যান ছিলেন।

     

পাঠকের প্রতিক্রিয়া

আইএমএফের প্রধানের নৈতিকতার এই অবস্থা, আর আইএমএফ কিনা ঠিকাদারী নিয়েছে দেশে দেশে অর্থনৈতিক চরিত্রের রিফর্মের! সত্যি সেলুকাস, কি বিচিত্র এই পুঁজিবাদী বিশ্বের কাজ-কারবার!

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন