• ইউক্রেনের ক্রাইমিয়ায় গণভৌটঃ ৯৫% ভৌটার চান রাশিয়ায় যোগ দিতে
    ukraine_crimea_referendum.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - ১৬ মার্চ ২০১৪, রোববারঃ  জাতিগত রুশ জনগোষ্ঠী অধ্যুষিত ইউক্রেনের স্বায়ত্বশাসিত ক্রাইমিয়া প্রদেশ কি ইউক্রেনের সাথেই থাকবে নাকি প্রতিবেশি রাশিয়া ফেডারেশনে যোগ দিবে তা নির্ধারণে আজ গণভৌট অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রাথমিক ভৌট গণনায় দেখা যাচ্ছে অন্ততঃ ৯৫ শতাংশ ভৌটদাতা রাশিয়ায় যোগদানের পক্ষে। খবর জানিয়েছে বিবিসি ও রাশিয়া টুডে।

    কিয়েভের নতুন কর্তৃপক্ষ প্রত্যাখ্যান করেছে এ-ভৌট। যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন এ-গণভৌটকে বে-আইনী বলে অভিহিত করে এটি অগ্রাহ্য করার ঘোষণা দিয়েছিলো আগেই। অন্যদিকে রাশিয়ার প্রেসিডেণ্ট ভ্লাদিমির পুতিন একে সকল আন্তর্জাতিক আইন ও জাতিসঙ্ঘের সনদের সাথে সম্পূর্ণভাবে সঙ্গতিপূর্ণ বলে মন্তব্য করেছেন। ক্রাইমিয়া রাশিয়ায় যোগ দিলে রাশিয়ার উপরে অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপ করার হুমকিও দিয়েছে পশ্চিমা পরাশক্তিগুল।

    ইউক্রেনের বর্তমান রাজনৈতিক সঙ্কট শুরু হয় যখন দেশটির প্রেসিডেণ্ট ভিক্টর ইয়ানুকোভিচ ইউরোপীয় ইউনিয়নের সাথে একটি 'অস্বচ্ছ' মুক্ত বাজার ভিত্তিক বাণিজ্য চুক্তি করার বদলে রাশিয়ার সাথে বাণিজ্য বাড়াতে ও ঋণ নিতে চুক্তিবদ্ধ হন। ইউরোপন্থীরা প্রেসিডেণ্টের বিরুদ্ধে আন্দোলন শুরু করে - যাদের মধ্য অন্যতম হচ্ছে স্‌ভোদা পার্টি ও রাইট সেক্টরের মতো উগ্র দক্ষিণপন্থী ও নব্য নাৎসীরা।

    গত মাসের সহিংস আন্দোলনে ইউক্রেনের প্রেসিডেণ্টকে ক্ষমতাচ্যুত করার পর জাতিগত রুশ ও ইহুদিরা দাবি করে তাদের নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়েছে। রুশদের নিরাপত্তার বিষয়টি জটিল আকার ধারণ করে তড়িঘড়ি করে রুশ ভাষাকে আঞ্চলিক দাপ্তরিক ভাষার মর্যাদা থেকে বঞ্চিত করার ফলে। দেশটির পূর্ব ও দক্ষিনাঞ্চলে রুশদের ঘনত্ব বেশি, ফলে অনির্বাচিত ও স্ব-ঘোষিত নতুন সরকারের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ শুরু হয় ঐ অঞ্চলগুলোতে।

    দক্ষিণের স্বায়ত্বশাসিত প্রদেশ ক্রাইমিয়া রাশিয়ার একটি নৌঘাঁটি রয়েছে, যেটতে ২৫,০০০ পর্যন্ত সৈন্য রাখার অনুমতি রয়েছে। উভয় দেশের চুক্তি অনুসারে এ-ঘাঁটিটির ইজারার মেয়াদ ১৯৪২ সাল পর্যন্ত। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে রাশিয়ার পার্লামেণ্ট 'প্রয়োজনে বল প্রয়োগের' অনুমতি দেয় প্রেসিডেণ্ট পুতিনকে।

    গত ৬ মার্চ ইউক্রেন থেকে বিমুক্ত হয়ে রাশিয়ার সাথে যুক্ত হবার একটি প্রস্তাব পাশ হয় ক্রাইমিয়ার পার্লামেণ্টে। সে-সিদ্ধান্ত সম্পর্কে প্রদেশটির জনগণের রায় নিতেই আয়োজিত হয়েছিলো আজকের গণভৌট।

     

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন