• ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভারতের দূতঃ প্রতিবাদে স্লৌগান 'গৌ ব্যাক ইণ্ডিয়া' (ভিডিও)
    du_protest_indian_highcomm_by_farhan_shahriar_pulock.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - লণ্ডন ১৭ অগাষ্ট ২০১৬, বুধবারঃ আজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এসেছিলেন ভারতের রাষ্ট্রদূত হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা। তবে উষ্ণ অভ্যর্থনার পাবার বদলে তাকে শুনতে হয়েছে 'গৌ ব্যাক ইণ্ডিয়া' স্লৌগান। এ-ঘটনার একটি ভিডিওক্লিপ এখন ফেইসবুকে 'ভাইর‍্যাল' হয়ে ঘুরছে।

    ভারত-বিরোধী স্লৌগান উচ্চারণকারীদের প্রধান ক্ষোভ ছিলো দৃশ্যতঃ রামপালের কয়লা বিদ্যুৎ প্রকল্প নিয়ে। এর অধীনে সুন্দরবনের বাংলাদেশ অংশ সংলগ্ন রামপালে উভয় দেশের যৌথ মালিকানায় একটি বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপিত হবে যা থেকে ১৩২০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ পাওয়া যাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

    তবে বাংলাদেশের কিছু রাজনৈতিক দল ও পরিবেশবাদীরা এ-প্রকল্পের তীব্র বিরোধীতা করছেন। তাদের মতে, এটি বাস্তবায়িত হলে সুন্দরবন মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে, যা বাংলাদেশে পরিবেশ ও আর্থ-সামাজিক সঙ্কটের কারণ ঘটাতে পারে।

    আজ হর্ষ বর্ধন শ্রিংলার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে যাওয়ার উপলক্ষ্য ছিলো জয়নুল গ্যালারীতে 'ইণ্ডিয়া@বাংলাদেশ' শিরোনামের একটি চিত্রকলা প্রতিযোগিতার পুরষ্কার বিতরণ করা। এ-অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিলো ঢাকাস্থ ভারতীয় দূতাবাস ও চারুকলা অনুষদ। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যও উপস্থিত ছিলেন সেখানে।

    দূতের আগমনের সংবাদে রামপাল-বিরোধী কর্মীরা তৎক্ষণাৎ জড়ো হয়ে এ-প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করেন। এতে অংশগ্রহণকারী তরুণরা ইংরেজীতে লেখা প্ল্যাকার্ড বহন করছিলেন। এ-সমাবেশে উচ্চারিত স্লৌগান ও প্ল্যাকার্ডের বক্তব্য ছিলো বেশ সরাসরি, যেমনঃ- 'ষ্টপ বর্ডার কিলিং'; 'ডৌণ্ট ডিসস্টার্ব এ্যা টাইগার'; গৌ ব্যাক এনটিপিসি'; 'গৌ ব্যাক ইণ্ডিয়া' ইত্যাদি।

    ভারতীয় দূতাবাস কিংবা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কারও পক্ষে থেকেই এ-প্রতিবাদ সভা সম্পর্কে কোনো মন্তব্য আসেনি এখনও।

     

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন