• বাংলাদেশে শিল্প -পুলিসের গুলিতে শ্রমিক নিহতঃ সাভার-গাজীপুরে বিক্ষোভ-সংঘর্ষ
    bangladesh_garment_workers_protest.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - ১৮ নভেম্বর ২০১৩, সোমবারঃ আজ বাংলাদেশে বিক্ষোভরত পোশাক-শ্রমিকদের উপর শিল্প-পুলিস গুলি চালালে ১ জন নিহত ও ৩০ জন আহত হয়েছে। গাজীপুরের একটি কারখানায় একজন নারী শ্রমিককে কর্তৃপক্ষীয় একজন লাঞ্ছিত করার প্রতিবাদে শ্রমিকেরা কারখানা ত্যাগের চেষ্টাকালে পুলিস গুলি চালিয়ে এ-হত্যাকাণ্ড ঘটায়।

    আজ সকালে গাজীপুরের সারদাগঞ্জে অবস্থিত জিএমএস কম্পৌজিট নিটিং এর কারখানার ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের একজন সদস্য কর্মরত একজন নারী শ্রমিককে লাঞ্ছিত করে বলে অভিযোগ ওঠে। এর প্রতিবাদে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা কারখানা ত্যাগ করতে চেষ্টা করলে তাদেরকে ঠেকাতে কর্তৃপক্ষ মূল ফটক তালাবদ্ধ করে রাখে। শ্রমিকরা তালা ভেঙ্গে বেরুতে চাইলে সেখানে উপস্থিত শিল্প-পুলিস বাহিনীর সদস্যদের সাথে তদের ধাওয়া-পাল্টা-ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

    পুলিস-শ্রমিক ধস্তাধস্তির এক পর্যায়ে পুলিস শ্রমিকদের উপরে জীবন্ত বুলেট ছুঁড়তে শুরু করে। এতে অন্ততঃ ৩০ জন শ্রমিক গুলিবিদ্ধ হয় বলে জানিয়েছে স্থানীয় সংবাদ দৈনিক প্রথম আলোর অনলাইন বিভাগ। আহতদেরকে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। সেখানেই মৃত্যুবরণ করেন আহত ২৬ বছর বয়েসী তরুণ শ্রমিক বাদশাহ মিয়া।

    সকাল থেকেই সাভার ও গাজীপুরের পোশাক শ্রমিকরা বেতন বৃদ্ধির জন্য বিক্ষোভ শুরু করে; কোনও কোনও কারখানার শ্রমিকদের দাবি ছিলো অন্ততঃ নতুন বেতনকাঠামো বাস্তবায়িত হোক। বাদশাহ'র মৃত্যুর পর তাদের ক্ষোভ বহুগুণ বেড়ে যায়। স্থানীয় প্রশাসন সকাল থেকেই অতিরিক্ত পুলিস ও বিজিবি'র সদস্য মোতায়েন করেছিলো, যাদের সাথে শ্রমিকদের দফায় দফায় সংঘর্ষ বাঁধে। একদিকে শ্রমিকদের অস্ত্র ইট-পাটকেল অন্যদিকে নিরাপত্তারক্ষীরা ব্যাটন, টীয়ার গ্যাস, রবার বুলেট, জীবন্ত বুলেট, জলকামান ইত্যাদি। স্থানীয় অনলাইন পত্রিকা বাংলাদেশনিউজ২৪৭.কম জানিয়েছে অন্ততঃ ৫০ জন শ্রমিক আজ আহত হয়েছে।

    আশুলিয়া, জিরাবো, বাইপাইল, টঙ্গি, আউচ পাড়া, চেরাগ আলী, বৌর্ড বাজার, কাশীমপুর ইত্যাদি এলাকার অজ্ঞাত সংখ্যক কারখানার শ্রমিকরা আজ বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। তবে বার্তা-সংস্থা এসৌসিয়েটেড প্রেস জানিয়েছে অন্ততঃ ১৪০টি কারখানায় আজ কাজ বন্ধ ছিলো। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে অনেক কারখানায় কর্তৃপক্ষ ছুটি ঘোষণা করে।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন