• ভারতীয় সেনা-প্রধানের স্বীকারুক্তিঃ ‘আমাকে ১৪ কোটি রুপী ঘুষ সাধা হয়েছিলো’
    general-v-k-singh-indian-army-chief.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - ২৫ মার্চ ২০১২, রোববারঃ  ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্রধান জেনারেল ভিকে সিংকে নির্দিষ্ট সামরিক যান কেনা অনুমোদনের বিপরীতে কোনো একটি কোম্পানীর পক্ষে লবিকারীদের একজন ১৪ কোটি রুপী ঘুষ সেধেছিলেন বলে তিনি নিজেই সাম্প্রতিক এক সাক্ষাতকারে দৈনিক হিন্দুকে জানিয়েছিলেন উল্লেখ করে আজ খবর প্রকাশ করেছে পত্রিকাটি।

    জেনারেল সিংয়ের ভিন্ন-ভিন্ন দুটো জন্ম-তারিখের অস্তিত্ব নিয়ে বিতর্কের সূত্র ধরে সাক্ষাতকারে তিনি জানান, একটি নির্দিষ্ট প্রস্তুতকারকের অনুন্নত মানের ৬০০ যান সেনাবাহিনীর জন্য একজন ‘লবিস্ট’ তাঁকে ১৪ কোটি রুপী ঘুষ সাধেন। সিং বলেন, ‘এই লোকগুলোর একজনের স্পর্ধা কেবল কল্পনা করুন যে, তিনি আমার কাছে এসে বললেন, আমি যদি ক্রয় অনুমোদন করি, তাহলে তিনি আমাকে ১৪ কোটি রুপী দেবেন। তিনি ঘুষ সাধছিলেন আমাকে - সেনাবাহিনীর প্রধানকে’।

    ভারতীয় সেনাবাহিনীতে ঘুষ দেয়া-নেয়া পরম্পরা বুঝাতে গিয়ে জেনারলে সিং বলেন, ‘তিনি আমাকে বললেন, আমার আগের লোকেরা অর্থ নিয়েছেন এবং আমার পরের লোকেরাও নেবেন।

    ঘুষের প্রস্তাবে জেনারেলের প্রতিক্রিয়া কী ছিলো বুঝাতে তিনি জানান, ঘুষের প্রস্তাবে তিনি ভীষন ঝাঁকি খেয়েছেন। তিনি বলেন, ‘যদি আপনার কাছে একজন এসে বলে যে আপনি এতো পাবেন, তাহলে আপনি কী করতে পারেন।’

    ঘুষ-সাধা ব্যক্তিটি সেনাবাহিনীরই লোক নির্দেশ করে জেনারেল জানান, বর্তমানে তিনি অবসর গ্রহণ করেছেন। কেমন এমনটি সম্ভব, তা বুঝাতে জেনারেল সিং দ্য হিন্দুকে বলেন, ‘স্পষ্টতঃ কোথাও আমাদের চরিত্র ও নৈতিক মানের পতন হয়েছে।’

    উল্লেখ্য, জেনারেল ভিকে সিংয়ের ম্যাট্রিকুলেশনের সনদপত্রে জন্ম তারিখ হচ্ছে ১০ই মে ১৯৫১, কিন্তু সেনাবাহিনীতে ভর্তির সময় আবেদন পত্রে লেখা হয়েছিলো ১০ ই মে ১৯৫০, যা বর্তমানে তাঁর সেনাপ্রধান হিসেবে থাকার মেয়াদ নির্ধারণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দেখা দিয়েছে।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন