• মিসরের প্রেসিডেণ্ট মুর্সি ক্ষমতাচ্যুত সেনাবাহিনীর হাতেঃ সংবিধান স্থগিত, দ্রুত নির্বাচনের অঙ্গীকার
    egypt_morsi_protest.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি – ৩ জুলাই ২০১৩, বুধবারঃ ব্যাপক গণবিক্ষোভের মুখে মিসরের প্রথম নির্বাচিত-প্রেসিডেণ্ট মোহাম্মদ মুর্সিকে আজ ক্ষমতাচ্যুত করেছে সেনাবাহিনী। বাতিল ও করা হয়েছে সংসদ; স্থগিত করা হয়েছে সংবিধান। অস্থায়ী প্রেসিডেণ্ট হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে সুপ্রিম কন্সটিটিউশ্যান কৌর্টের প্রধান আদ্‌লি মানসুরকে। তবে অজ্ঞাত স্থান থেকে সেনাবাহিনীর হস্তক্ষেপ মানতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন মুর্সি।

    প্রেসিডেণ্টকে অপসারনের পর দ্রুত নতুন প্রেসিডেণ্ট নির্বাচনের অঙ্গীকার করেছেন সেনাপ্রধান লেফটেনেণ্ট জেনারেল আব্দেল ফাত্তাহ্‌ এল-সিস্‌সি। আজ সন্ধ্যায় মিসরের টেলিভিশনে প্রচারিত এক ভাষণে তিনি এ-ঘোষণা দেন। এ-সময় তাঁর সাথে কায়রোর গ্র্যাণ্ড মুফ্‌তি, দেশটির খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের প্রতিনিধি কপ্টিক পৌপ, গত নির্বাচনে পরাজিত প্রার্থী মোহাম্মেদ এল-বারাদি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

    ২০১১ সালের আরব-বিশ্বে রাজনৈতিক পরিবর্তনকামী ‘আরব বসন্ত’র শুরুর দিকে হোসনি মোবারকের ত্রিশ বছরের স্বৈরশাসনের অবসান ঘটায় কায়রোর তাহরির স্কোয়ারের গণ-অভ্যূত্থান। তারপর সেনাবাহিনী অন্তর্বর্তীকালীন শাসক হিসেবে আবির্ভূত হয় এবং পরের বছর নির্বাচনের মধ্য দিয়ে তার অবসান হয়।  
    মিসরের প্রথম গণতান্ত্রিক নির্বাচনে বিজয়ী হন দীর্ঘদিন ধরে সংগঠিত হওয়া মুসলিম ব্রাদারহূডের প্রার্থী মোহাম্মদ মুর্সি। তবে সে-নির্বাচনে ব্যাপক মাত্রায় কারচুপির অভিযোগে অসন্তুষ্ট ছিলেন অনেক নাগরিক।

    মুর্সি ক্রমাগত স্বৈরাচারী হয়ে উঠছেন, সংবিধানকে ধীরে ধীরে ইসলামীকিকরণ করছেন, খাদ্যদ্রব্যের উর্ধ্বগতি ঠেকাতে পারছেন না, নাগরিকগণের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হচ্ছে, অর্থনৈতিক স্থবিরাত নিরসনে কার্যকর পদক্ষেপ নিচ্ছেন না, নিরাপত্তা বাহিনীগুলোতে প্রতিশ্রুত সংস্কার আনয়ণে ব্যর্থ হয়েছেন ইত্যাদি অভিযোগে গতমাস থেকে পুনরায় আন্দোলন দানা বেঁধে ওঠে মিসরের রাজপথে।

    গত মাসে ‘তামারুদ’ বা বিদ্রোহ নামের একটি সরকার-বিরোধী আন্দোলন-জোট মুর্সিকে পদত্যাগ করতে আহবান জানায়। ৩০শে জুন অর্থাৎ প্রেসিডেণ্টের ক্ষমতাগ্রহণের প্রথম বর্ষপূর্তিতে তাঁর প্রতি আস্থাহীনতা-জ্ঞাপক দুই কোটিরও বেশি স্বাক্ষর সংগ্রহ করে জোটটি। প্রসঙ্গত, এ-জোটের অন্তর্ভূক্ত রয়েছেন গত নির্বাচনে পরাজিত মোহাম্মেদ এল-বারাদি ও হামদিন সাব্বাহির দলও।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন