• যুক্তরাষ্ট্র-দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ সামরিক মহড়াঃ উত্তরের পাল্টা মহড়ায় সীমান্তে গোলা বিনিময়
    s_korea_usa_drill_2014_shells_exchange_with_north.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - ৩১ মার্চ ২০১৪, সোমবারঃ চলমান যুক্তরাষ্ট্র-দক্ষিণ কোরিয়া সামরিক মহড়ার মাঝে উত্তেজিত উত্তর কোরিয়াও মহড়া শুরু করলে আজ দুই কোরিয়ার মধ্যে বিতর্কিত সীমান্তে গোলার বিনিময় ঘটেছে। তবে কোনো পক্ষেই কোন ক্ষয়-ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি। খবর জানিয়েছে রয়টার্স, এপি ও সাউথ চায়না মর্ণিং পৌস্ট।

    এ-মাসের শুরুতে যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়া শুরু করে মাসাধিককাল স্থায়ী 'ফৌল ঈগল' নামের একটি যৌথ সামরিক অনুশীলন। বিস্তারিত এ-অনুশীলনে দুই মিত্রদেশের প্রায় ১১,০০০ সেনা অংশ নিচ্ছে। উত্তর কোরিয়া একে 'আগ্রাসনের অনুশীলন' বলে চিহ্নিত করে জাতীয় নিরাপত্তায় হুমকি হিসেবে দেখছে। এ-অনুশীলন নিয়ে তিন দেশের মধ্যে কয়েক সপ্তা ধরে চলছে উত্তপ্ত বাক্য-বিনিময়।

    আজ স্থানীয় সময় দুপুর সোয়া বারোটার দিকে বিতর্কিত সীমান্তের কাছে উত্তর কোরিয়ার সেনাবাহিনী জীবন্ত গোলা নিক্ষেপের অনুশীলন শুরু করে। প্রায় ৫০০টি গোলা নিক্ষিপ্ত হয় তাদের অস্ত্র থেকে যার মধ্যে প্রায় ১০০টি দক্ষিণের দাবিকৃত অংশে গিয়ে পড়ে। আধ ঘণ্টার মধ্যে দক্ষিণের সেনাবাহিনীও পাল্টা গোলা নিক্ষেপ করতে শুরু করে। আকাশে তারা এফ-১৬ জঙ্গী বিমানও পাঠায়। তবে উত্তরের সৈন্যরা অনুশীলন অব্যাহত রাখে এবং বিকেল তিনটার দিকে তা শেষ করে।

    উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তাদের অনুশীলনকে যুক্তরাষ্ট্র-দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ অনুশীলনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ বলে বর্ণনা করেছে। উল্লেখ্য, ১৯৫০-৫৩ সালের কোরিয়ার যুদ্ধের পর কোনো স্থায়ী শান্তিচুক্তি স্বাক্ষরিত হয়নি, বরং একটি অস্থায়ী যুদ্ধ-বিরতি স্বাক্ষরিত হয়েছিলো। অর্থাৎ, আনুষ্ঠানিকভাবে উভয় রাষ্ট্র এখনও যুদ্ধে লিপ্ত রয়েছে।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন