• লণ্ডন অলিম্পিক্‌সের যবনিকাপাত বর্ণিল সুর-মূর্ছনায়ঃ শতো-বছরের সেরা সাফল্য ব্রিটেইনের
    uk_olympic_closing.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি - ১২ অগাস্ট ২০১২, রোববারঃ  গতমাসের ২৭ তারিখে শুরু হওয়া 'বহু-ক্রীড়ার বৃহত্তম আন্তর্জাতিক আসর' অলিম্পিকস্‌ শেষ হলো আজ। স্বাগতিক ব্রিটেইন প্রত্যাশার চেয়েও বেশি পদক পেয়ে তৃতীয় স্থান অর্জনের গৌরব অর্জন করেছে। পদক-তালিকার শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র এবং দ্বিতীয় স্থানটি দখল করেছেচীন।

    উদ্বোধনী অনুষ্ঠান-জুড়ে ছিলো ছোট্ট একটি দ্বীপ ব্রিটানিকার 'আইল্‌স অফ ওয়াণ্ডার্স' হয়ে ওঠার কাহিনী, শেষ দিনে হলো অসাধারণ আলোর কাজের সমন্বয়ে সেরা ব্রিটিশ সঙ্গীতের প্রদর্শনী। এতে অন্তর্ভূক্ত ছিলো জন লেননের কন্ঠ থেকে শুরু করে হালের স্পাইস গার্ল্‌স পর্যন্ত। যেনো পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা লক্ষ-লক্ষ অংশগ্রহণকারী ও দর্শককে গেয়ে-নেচে বিদায় জানালো লণ্ডন।

    এবার নিয়ে মোট তিন বার আধুনিক অলিম্পিক্‌স আসরের আয়োজন করলো ব্রিটেইন, কিন্তু ১৯০৮ সালের পর এবারই সর্বোচ্চ স্বর্ণ-পদক জিতেছেন ব্রিটিশ খেলোয়াড়গণ। স্বর্ণ-রৌপ্য-ব্রৌঞ্জ মিলিয়ে অন্ততঃ ৪৮টি পদক জেতার লক্ষ্য নিয়ে শুরু করলেও শেষাবধি ব্রিটেইন প্রতিটি ক্রীড়ায় অংশ নিয়ে ২৯টি স্বর্ণ-সহ সর্বমোট ৬৫টি পদক অর্জন করেছে।

    এবার বাংলাদেশ থেকে অংশ নেন ৫ জন ক্রীড়াবিদ, যাঁদেরকে সমর্থন ও উৎসাহ দিতে সাথে এসেছিলেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর ৫৫ জন সফরসঙ্গী। কিন্তু অংশগ্রহণকারীদের কেউই কোনোরূপ সাফল্য দেখাতে পারেননি। অবশ্য কোনো ক্রীড়াতেই যোগ্যতা দেখিয়ে অংশ নেয়নি বাংলাদেশ, কর্তৃপক্ষীয় বিশেষ বিবেচনায় অর্থাৎ ওয়াইল্ড কার্ডের কল্যাণে সুযোগ পেয়েছে। ফলে, পদক-প্রাপ্তির তেমন কোনো আশা ছিলোও না। এবারের অলিম্পিক্‌সেও তাই বাংলাদেশের জন্য একমাত্র সান্তনা রইলো 'অভিজ্ঞতা-অর্জন'।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন