• সুপারমার্কেটের উপাত্তে প্রকাশঃ ব্রিটেনের প্রতিটি সংসার গড়ে মাসে ৬০ পাউন্ড দরিদ্রতর
    Food-price.jpg

    ইউকেবেঙ্গলি, ২১ জুন ২০১১, মঙ্গলবারঃ  বেতনের অ-বৃদ্ধির বিপরীতে খাদ্যপণ্যের মূল্য এবং যানবাহনের ভাড়া ও জ্বালানী-মূল্য বৃদ্ধির কারণে ব্রিটেইনের প্রতিটি সংসার গত বছরের তুলনায় এবছর গড়ে প্রতিমাসে ৬০ পাউন্ড দরিদ্রতর হয়েছে। ব্রিটেইনের সুপারমার্কেট চেইনগুলোর অন্যতম আস্‌দা’র প্রকাশিত উপাত্ত থেকে জানা গিয়েছে এ-তথ্য।

    ২০০৭ সালের শুরু থেকে আস্‌দা তাদের মাসিক বিক্রয়-উপাত্ত প্রকাশ করার মাধ্যেমে ক্রেতা-সাধারণের আয়ের সূচক লক্ষ্য করার ভিত্তিতে জানায়, গত বছরের মে মাসের তুলনায় এ-বছরে মে মাসে মানুষের ক্রয় ক্ষমতা সপ্তাহে কমেছে ১৪ পাউন্ড। মাসিক হারে তা ৬০ পাউন্ডে হিসাব করা হয়েছে।

    আস্‌দার উপাত্ত দেখাচ্ছে, গত বছরে মে মাসে একটি পরিবার প্রতি সপ্তাহে গড়ে ১৬৫ ব্যয় করতো, কিন্তু খাদ্যের মূল্য বৃদ্ধির কারণে তা ৮% কমে গিয়েছে।

    আস্‌দার হিসেব মতে, গত ১২ মাসে চালের দাম বেড়েছে ৪০% এবং গাড়ীতে বা গণ-পরিবহনে চলা-ফেরার খরচ বেড়েছে ৮%-এরও বেশি।

    কোনো-কোনো সুপার মার্কেটে খাদ্যমূল্যের বৃদ্ধির হার আরও উচ্চ এবং সে-অনুসারে মানুষের ক্রয়ক্ষমতা আরও হ্রাস-প্রবণ হবে বলে ধারণা করা যায়।

    উল্লেখ্য, গত মাসে ব্রিটিশ দাতব্য প্রতিষ্ঠান অক্সফাম তারদের নিজস্ব গবেষণা লব্ধ তথ্যের ভিত্তিতে আসন্ন খাদ্য-সঙ্কট এবং বিশ্বব্যাপী এর সম্ভাব্য ভয়াবহ পরিণতির কথা উল্লেখ করে ধনী দেশ-সমূহের সরকারগুলোর কাছে কার্যকর পদক্ষেপ নেবার দাবী জানায়। ইতিপূর্বে জাতিসঙ্ঘও খাদ্যের মূল্যবৃদ্ধি সম্পর্কেও আগাম-হুঁশিয়ারি প্রকাশ করে।

    আমেরিকায় বন্যা, ইউরোপে খরা, শষ্যবীজ ও কৃষি-রাসায়নিকে বহুজাতিক কোম্পানীগুলোর একচেটে অধিকার, সর্বোপরি খাদ্য-শষ্য ব্যবহার করে জ্বালানী তেল উৎপাদন ও কৃষিজমিতে খাদ্য শষ্যের বদলে তেল উৎপাদক ফসল ফলানোর কারণেই পৃথিবীতে খাদ্যপণ্যের দাম হুহু করে বেড়ে যাচ্ছে বলে অক্সফামের গবেষণা প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

    বিশ্ব-জুড়ে খাদ্য-মূল্যের বৃদ্ধিতে আফ্রিকা, এসিয়া ও লাতিন আমেরিকার দরিদ্র দেশগুলো দুর্ভিক্ষ দ্বারা বেশি আঘাতপ্রাপ্ত হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। দুর্ভিক্ষ আঘাত হানলে বাংলাদেশের মতো দেশগুলোতে - যেখানে অর্ধেকেরও বেশি মানুষ দরিদ্রসীমার নিচে বাস করছে - এর চিত্র হতে পারে ভয়াবহ।

আপনার মন্তব্য

এই ঘরে যা লিখবেন তা গোপন রাখা হবে।
আপনি নিবন্ধিত সদস্য হলে আপনার ব্যবহারকারী পাতায় গিয়ে এই সেটিং বদল করতে পারবেন